নয় ঘণ্টায় ১১১ মি.মি. বৃষ্টিতে ডুবেছিল রাজধানী

শনিবার সকালে প্রথম দফায় বৃষ্টি হয় রাজধানীতে। দুপুর ২টার দিকে শুরু হয় আরেক দফা বৃষ্টি। বৃষ্টি হলেই জলাবদ্ধতা। সড়কপথ দেখলে মনে হয় এ যেন নৌপথ। এটি রাজধানী ঢাকার নিয়মিত চিত্র।

রাজধানীতে ১১১ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত হয়েছে। এতে জলাবদ্ধতায় দুর্ভোগে পড়তে হচ্ছে রাজধানীবাসীকে। তবে সহসাই কাটছে না বৃষ্টির এ ধারা। রাতেও নামতে পারে বৃষ্টি। এছাড়া দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে ঝোড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টিপাতের দেখা মিলতে পারে।

শনিবার (৫ জুন) সন্ধ্যায় বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদফতরের আবহাওয়াবিদ মো. ওমর ফারুক জানান বৃষ্টিপাতের এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, তিন ঘণ্টা পরপর বৃষ্টিপাতের পরিমাণ আপডেট করা হয়। এতে দেখা যায়, সকাল ৬টা থেকে ৯টা পর্যন্ত ২৯ মি.মি., ৯টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত ২৬ মি.মি. ও দুপুর ১২টা থেকে বিকেল ৩টা পর্যন্ত ৫৬ মি.মি. বৃষ্টি রেকর্ড করা হয়।

এ আবহাওয়াবিদ বলেন, দেশে এখনো মৌসুমি বায়ু বয়ে যাওয়া শুরু হয়নি। হয়তো আগামী দুই থেকে তিন দিনের মধ্যে প্রবেশ করতে পারে। ওই সময়ে দেশে বৃষ্টিপাতের পরিমাণ বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

এদিকে, আগামী ২৪ ঘণ্টার আবহাওয়ার পূর্বাভাসে দেখা যায়, দক্ষিণপশ্চিম মৌসুমি বায়ু ইয়াঙ্গুন উপকূল পর্যন্ত অগ্রসর হয়েছে এবং তা আরও অগ্রসর হওয়ার জন্য আবহাওয়াগত পরিস্থিতি অনুকূলে রয়েছে। ঢাকা, ময়মনসিংহ, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের অনেক জায়গায় এবং খুলনা, বরিশাল, রাজশাহী ও রংপুর বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা হাওয়াসহ বৃষ্টি/বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে।